বিয়ে না দেয়ায় অভিমান করে কিশোরের আত্মহত্যা

বাংলাপ্রেস ডেস্ক
৩১ অক্টোবর, ২০২২

মাসুদ রানা রাব্বানী, রাজশাহী: রাজশাহী মহানগরীতে রাব্বি ইসলাম রাজ (১৭) নামের এক কিশোরের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার (৩১ আক্টোবর) দুপুর দেড়টার দিকে মৃহানগরীর কাজলা (ছোট মসজিদ) এলাকা থেকে ওই কিশোরের লাশ উদ্ধার করা হয়। মৃত রাব্বি ইসলাম রাজ ওই এলাকার মোঃ রবিউল ইসলামের ছেলে।

মৃত কিশোরের নানী এসেনা জানায়, মৃত রাজ এবার এসএসসি পরিক্ষা দিয়েছে। পরিক্ষার মধ্যে পাশের এলাকার ৭ম শ্রেণীতে পড়–য়া এক কিশোরীর সাথে তার পরিচয় হয়। সেই পরিচয় পছন্দে গড়ায়। এরই মধ্যে মৃত রাজের এসএসসি পরিক্ষা শেষ হয়। কিশোরী রাজকে জানায় তার বিয়ে ঠিক হয়ে গেছে। বাড়ির লোকজন তার অন্যত্র বিয়ে দেবে। এতে রাজ অস্থির হয়ে ওঠে।

এরপর রাজ তার পছন্দের বিষয়টি তার “মা” খুশি ও নানীকে খুলে বলে। রাজের অস্থিরতা দেখে গত শুক্রবার (২৮ অক্টোবর) কিশোরীর বাড়িতে বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে যায় রাজের বাড়ির লোকজন। কিশোরীর পরিবার থেকে জানানো হয় মেয়ে নাবালিকা তাই তারা এখন বিয়ে দেবেন না। পড়াশোনা করাবেন। রাজকেও পরামর্শ দেয় পড়াশোনা শেষ করার জন্য। বলেন, ভাগ্যে থাকলে ভবিষ্যতে বিয়ে হবে।

এরপর থেকে রাজ কারো সাথে ঠিক মতো কথা বলতো না, নাওয়া খাওয়া ঠিক মতো করতো না। সারাক্ষন মন খারাপ করে থাকতো।

তার নানী এসেনা আরও বলেন, সোমবার সকাল ৮টার দিকে নাস্তা খাওয়ার জন্য তার মা ঘরের দরজায় গিয়ে রাজকে ডাকে। অনেকক্ষন দরজা ধাক্কা দিয়ে ও ডাকাডাকির পরও কোন সাড়া শব্দ না পয়ে আশপাশের বাড়ির লোকজনকে ডাকেন মা খুশি। এরপর লোকজন এসে প্লেনসিটের দরজা কেটে রাজের শয়নকক্ষে প্রবেশ করে দেখেন ঘরের আড়ার সাথে গলায় দড়ি দিয়ে ফাঁস নিয়েছে রাজ। ঝুলে রয়েছে তার নিথর দেহ। পরে নগরীর মতিহার থানা পুলিশকে খবর দেয়া হয়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে রাজের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে নিয়ে যায়। মতিহার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ আনোয়ার আলী তুহিন জানান, মৃত কিশোর রাজের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

ময়নাতদন্ত শেষে কিশোরের লাশ তার পরিবাবের কাছে হস্তান্তর করা হবে। এ ব্যপারে মতিহার থানায় একটি (ইউডি) অপমৃত্যুর মামলা রুজু করা হয়েছে বলেও জানান ওসি।

বিপি>আর এল