ঢেউটিন দিয়ে মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ইউপি চেয়ারম্যান

বাংলাপ্রেস ডেস্ক
২৩ মে, ২০২৩

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি: ময়মনসিংহের গৌরীপুরে ৭ নং রামগোপালপুর ইউনিয়নের গুচ্ছ গ্রামের হতদরিদ্র বাসিন্দা সন্টু রবিদাস। পেশায় তিনি একজন দিনমজুর। কখনও ইটভাটা কখনও কৃষি কাজ কখনও বাসস্টেন্ড বাজারে মৌসুমি ফলমুলও বিক্রি করতে দেখা যায় তাকে । আগে তিনি রিক্সা চালিয়েও জীবিকা নির্বাহ করতেন কিন্তু ভাগ্যের নির্মম পরিহাস হঠাৎ শারিরীক অসুস্থতার কারনে তিনি সে পেশা ছেড়ে দেন । স্থায়ী কোন কাজ না থাকায় কোন রকমে চলে সংসার । এভাবেই কেটে গেল সংসার জীবনের ৪০ টি বছর আজও তিনি কোন সন্তানের মুখ দেখতে পাননি।

তার স্ত্রী পারুল রাণী জানান,আমরা দু`জনই শারিরীক ভাবে অসুস্থ। বছরের অধিকাংশ সময় চিকিৎসার সম্মুখীন হতে হয় । জটিল কঠিন সমস্যা জানতে পেরেও অর্থভাবে চিকিৎসা করা সম্ভব হয়নি। পরিনামে আজ নিঃ সন্তান হয়ে বেঁচে আছি। একজন নারীর জীবনে এর বড় কষ্ট কিইবা আছে। একটি বসত ঘর আজ সপ্তাহ খানেক আগে ঝড়ে ভেঙে পড়েছে । অনেক চেষ্টা করেও সেটি পুনমেরামত করতে পারছিনা বিধায় পাশের বাড়িতে আশ্রয় নিতে হয়েছে তাদের।

ঘরটি ভেঙে যাওয়ার পর থেকে তারা অনেক মানুষের কাছে সাহায্যের জন্য দারস্থ হয়েছেন। অবশেষে তাঁদের এই দূরাবস্থার খরব শুনে ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল্লাহ আল আমিন জনি ২ বান্ডেল নতুন ঢেউটিন ( যাহার বাজার মূল্য ১২ হাজার টাকা প্রায় ) দিয়ে আর্ত মানবতার এক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন।

সন্টু রবিদাস বলেন, এ টিনগুলো পেয়ে আমরা খুবই উপকৃত হয়েছি। পুরো ঘরটি পুন মেরামত করতে যে, টাকার দরকার তা কোন ভাবেই তার পক্ষে যোগার করা সম্ভব না। তাই খুব দুশ্চিন্তায় দিন কাটছে তাদের। কোন হৃদয়বান ও দানশীল ব্যক্তির সহযোগিতা পেলে তিনি ঘরটি পুন মেরামত করে আবারো ঘরে ফিরে যাবেন।

বিপি>আর এল